Uncategorized

রাতের কলকাতা ভীষণ অসুস্থ

কিছুদিন আগেই রাতের কলকাতার একটি ভয়ঙ্কর রূপ আমাদের সামনে এসেছিল যেখানে মডেল উষশী সেনগুপ্ত কিছু মদ্যপ মানুষের কাছে হেনস্থার স্বীকার হন। তাঁর বলা কথা এবং ভিডিও কিছু সময়ের মধ্যে ভাইরালও হয়ে যায়। পুলিশে সব জানানো হলে সবাইকে একরকম চমকে দিয়েই বলা যেতে পারে ২৪ ঘন্টার মধ্যেই পুলিশ পদক্ষেপ নেয়, ৭ জন ধরাও পড়ে।

মধ্যরাতে কলকাতায় এহেন ঘটনা যেন এখন মহামারীর আকার ধারণ করেছে। গতকাল রাতে ঘটে গেছে এরকমই একটি কান্ড টিভি সিরিয়ালের জনপ্রিয় একজন তারকা জিতু কমলের সাথে। ওনার বক্তব্য অনুযায়ী ওনার চলতি সিরিয়াল “গুড়িয়া যেখানে গুড্ডু সেখানে” শুটিং শেষে ১.০০ টা নাগাদ বাড়ি ফিরছিলেন তিনি।

অভিনেতা জিতু কমলের দুর্ঘটনাগ্রস্ত গাড়ি

অকস্মাৎ একটি গাড়ি এসে তার গাড়িতে ধাক্কা মারে সেইসঙ্গে তারাই উল্টে অশ্রাব্য গালিগালাজ করতে থাকে যেটা তিনি রেকর্ডও করেন। এরপর তিনি ওই গাড়ি ফলো করে গাড়িটিকে যখন ধরেন তখন তারা গালি দেওয়ার কথা অস্বীকার করতে থাকে। এমনকি তাদের গাড়ি যে ধাক্কা মেরেছে সে কথা মানতেও নারাজ। এই ঘটনার কিছু প্রমাণ তারকা নিজের ফেসবুক ওয়ালে শেয়ার করেছেন সেইসঙ্গে তার অভিজ্ঞতার কথা পরে ফেসবুক লাইভ এসেও জানান।

অভিনেতা জিতু কমল

এখন প্রশ্ন এটাই আমরা সাধারণ মানুষ অনেকে অনেক প্রয়োজনেই হয়তো রাত করে বাড়ি ফিরি, ফিরতে বাধ্য হয়। তার মানে এটাই দাঁড়ায় যে আমরা প্রতিনিয়ত এরকম হেনস্থার স্বীকার হব? হ্যাঁ হতে পারে এরপর পুলিশে জানানো হলে কড়া পদক্ষেপ নেবে পুলিশ কিন্তু এরকম ভাবে কতজনকেই বা শাস্তি দেয়া যায়? আর শাস্তি দেয়ার যদি জোর থাকত তাহলে একটা শাস্তির পর দ্বিতীয় ঘটনা ঘটতই না। সেলিব্রিটিরা অনেক বেশি সেফ থাকে সাধারণ মানুষের তুলনায় এটাই অনেকের ধারণা। কিন্তু রাতের এই হিংস্র কলকাতায় সবাই সমান তারকা কিংবা আমজনতা, ছেলে হোক বা মেয়ে।

দেখে নিন অভিনেতা জিতু কমলের সেই লাইভ ভিডিও

Posts created 17

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Categories

Archives

October 2022
M T W T F S S
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31  

Instagram Slider

No images found!
Try some other hashtag or username

Archives

Recent Posts

Categories

Related Posts

Begin typing your search term above and press enter to search. Press ESC to cancel.

Back To Top